Home / সর্বশেষ / চতুরমুখী তদন্ত করে বাংলাদেশের আসল প্রবলেম চাইল্ডকে খুঁজে বের করলেন দুই ভারতীয় বিশ্লেষক

চতুরমুখী তদন্ত করে বাংলাদেশের আসল প্রবলেম চাইল্ডকে খুঁজে বের করলেন দুই ভারতীয় বিশ্লেষক

মাঠ ও মাঠের বাইরের নানা বিতর্কে একাধিকবার আলোচনায় এসেছেন সাকিব আল হাসান। এইতো দিন কয়েক আগেও এই অলরাউন্ডারকে নিয়ে কত কি না হয়ে গেল।

তারপরও সব পেছনে ফেলে এশিয়া কাপে সাকিবের অধীনেই খেলছে বাংলাদেশ। যদিও আফগানিস্তানের বিপক্ষে নিজেদের প্রথম ম্যাচে শেষ শেষ হাসি হাসা হয়নি সাকিববাহিনীর।

নিজেদের প্রথম ম্যাচে হেরে বাংলাদেশ এখন অনেকটা ব্যাকফুটেই। সুপার ফোরে কোয়ালিফাই করতে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে জয়ের বিকল্প নেই। তবে এই ম্যাচের আগে ক্রিকবাজের এক অনুষ্ঠানে আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে ছিলেন সাকিব।

পোস্ট ম্যাচ শো’তে অজয় জাদেজা-পার্থিব প্যাটেল মিলে লাল-সবুজের দলটির সমস্যার সমাধান খোঁজার চেষ্টা করেছেন। এর আগে অবশ্য শো’টির সঞ্চালক গৌরব কাপুর সাকিবের প্রসঙ্গ টানতে গিয়ে জাদেজাকে প্রশ্ন করেন,

‘সাকিব কি বাংলাদেশ ক্রিকেটের প্রবলেম চাইল্ড’? উত্তরে জাদেজা, বোর্ড ও সাকিবের মধ্যে সমঝোতার বিষয় তুলে ধরার সঙ্গেও টি-টোয়েন্টি দলপতির নানা সময়ে নানা বিতর্ক নিয়েও জবাব দেন।

সাকিব অনেক প্রতিভাবান ক্রিকেটার কিন্তু ওকে নিয়ে কিছু না কিছু চলতেই থাকে। অন্যতম সেরা অলরাউন্ডার, অসাধারণ ক্রিকেটার। কিন্তু আপনার কি মনে হয় সাকিব বাংলাদেশ ক্রিকেটের ‘প্রবলেম চাইল্ড’?। যে সবসময় কোন না কোন ঝামেলা বাধাবেই! জাদেজাকে এমন প্রশ্ন করেন গৌরব।

সঞ্চালকের এমন প্রশ্নের জবাবে জাদেজা বলেন, ‘এটা তো স্বাভাবিক, সে যদি সাধারণ কোন বাচ্চা হতো তাহলে সে সাধারণ একজন ক্রিকেটার হতো। ওকে ভিন্নভাবে চিন্তা করতে হয়, ভিন্নভাবে কাজ করতে হয়। এমনটা হবেই।

এখানে অনেকসময় বাচ্চাকে বুঝতে হবে বাবা-মা’ই (বোর্ড) আসল বস। অথবা তাকে বাড়ি ছেড়ে নিজের মতো করে জীবনযাপন করতে হবে। এক্ষেত্রে এটা সম্ভব না, কারণ আপনি যখন দেশের হয়ে খেলবেন তখন বোর্ডের অধীনে আপনাকে থাকতে হবে। আপনাকে এটা বুঝতে হবে।’

‘তরুণ বয়সে এসব আসলে মাথায় আসে না। সে হয়তো ভাবতো আমি অনেক ভালো খেলি, আমি ভালো করব তাহলে বোর্ড কেন আমার কথা শুনবে না। কিন্তু এখন এটা আর হচ্ছে না, এই যুদ্ধটা শেষ।

আমি আশা করছি এই মুহূর্তে সব সমাধানে আছে, যেখানে বোর্ড ও সাকিব দুজনই নিজেদের অবস্থান সম্পর্কে জানে। বোর্ড হয়তো এটা মানে যে এটা আমাদেরই ছেলে, সাকিবও এটা মানে এরা মুরব্বি (বোর্ড) এদের সঙ্গে লড়াই করে আমি কোথায় যাব।’ আরও যোগ করেন তিনি।

তৃতীয় মেয়াদে এশিয়া কাপের আগে আবারও বাংলাদেশের টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক হয়েছেন সাকিব। জাদেজার দাবি, বোর্ড ও সাকিব এখন নিজেদের অবস্থান সম্পর্কে জানে। এছাড়া এই অলরাউন্ডারকে ক্লাসের ‘দুষ্ট ছেলে’ হিসেবেও আখ্যা দিয়েছেন তিনি।

জাদেজা বলেন, ‘এখন যেহেতু ওরা (বোর্ড) সাকিবকে আবারও অধিনায়ক করেছে, সে হয়তো নিজের অবস্থান সম্পর্কে জানে। মাঠ ও মাঠের বাইরে নানা ঝামেলার সম্মুখীন হয়েছে সে। স্টাম্পে লাথি মেরেছে, নিষিদ্ধ হয়েছে। দলের বাইরে থেকে। তবে একটা বিষয় নিশ্চিত সে ভালো ক্রিকেটার, ভালো ব্যাটার। সে হয়তো এতোটাও আক্রমণাত্মক না। কিন্তু পরিসংখ্যানের পাল্লা অনেক ভারী। ১০০০ রান করেছে ১০০’র ওপর উইকেট নিয়েছে, এই ফরম্যাটে একমাত্র যিনি। এতেই বোঝা যায় সে কেমন ক্রিকেটার।’

‘ক্লাসের দুষ্ট ছেলেকে মনিটর করলে সে ক্লাস সামলে নিবেই। বাংলাদেশ দলে অনেক প্রতিভা আছে। মাহমুদউল্লাহ ৬-৭ এ নামে। সে যদি ৩,৪ বা ৫ এ নামে তাহলে খেলার ধরন বদলে যেতে পারে। আমি দেখতে মুখিয়ে আছি সাকিব কিভাবে বাংলাদেশ ক্রিকেটকে এগিয়ে নিয়ে যায়। ওর সামনে সুযোগ আছে এই ফরম্যাটে দলের সামর্থ্য প্রমানের’ আরও যোগ করেন তিনি।

Check Also

পেনাল্টি শুট আউটে কাজে লাগিয়ে স্পেনকে হারিয়ে দিল মরক্কো

শক্তির বিচারে পিছিয়ে থাকলেও মরক্কোর মাঠের খেলায় পাওয়া গেলো না সেই ছাপটুকুও। কাউন্টার অ্যাটাকে বেশ …

Leave a Reply

Your email address will not be published.