Home / খেলার খবর / আইপিএলের প্রতি ম্যাচের জন্য ১১২ কোটি টাকা চায় বিসিসিআই

আইপিএলের প্রতি ম্যাচের জন্য ১১২ কোটি টাকা চায় বিসিসিআই

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) সম্প্রচার সত্ত্বের পুরোনো চুক্তির মেয়াদ শেষ হয়ে গেছে। নতুন চুক্তির জন্য ইতোমধ্যেই লড়াই শুরু করে হয়ে গিয়েছে।

নতুন চুক্তি থেকে বিসিসিআই আশা করছে ম্যাচপ্রতি ১ কোটি ২০ লাখ ডলার, যা বাংলাদেশি মুদ্রায় দাঁড়ায় ১১২ কোটি টাকা। বিসিসিআইয়ের এই চাওয়া পূরণ হলে ম্যাচপ্রতি আয়ের দিক থেকে পেছনে ফেলে দেবে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগকেও।

সবশেষ চুক্তিতে বিসিসিআই প্রতি ম্যাচে পেয়েছে ৯০ লাখ ডলার। নতুন চুক্তিতে সেটার ভিত্তিমূল্য ম্যাচ প্রতি ১ কোটি ২০ লাখ ডলারে উন্নীত করেছে ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড।

স্টার ইন্ডিয়ার সঙ্গে ২০১৭ সালে করা সেই চুক্তিই আইপিএলকে বিশ্বের চতুর্থ দামি লিগে পরিণত করেছিল। তখন লিগটির সামনে ছিল কেবল ন্যাশনাল ফুটবল লিগ (রাগবি), ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ (ফুটবল), মেজর লিগ বেসবল (বেসবল)। নতুন চুক্তিতে প্রত্যাশা পূরণ হলে আইপিএল পেছনে ফেলবে প্রিমিয়ার লিগকেও।

সম্প্রতি ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে বিসিসিআই সচিব জয় শাহ জানান, ‘এনএফএলে ম্যাচপ্রতি সম্প্রচারকের খরচ হয় ১ কোটি ৭০ লাখ ডলার। এটা খেলাধুলার যেকোনো লিগের জন্য সর্বোচ্চ। ১ কোটি ১০ লাখ টাকা আয় নিয়ে এরপর আছে ইপিএল। এমবিএলের খরচও এর কাছাকাছিই। আর আমরা শেষ পাঁচ বছরের চক্রে প্রতি আইপিএল ম্যাচে ৯০ লাখ ডলার পেয়েছি। এবার প্রতি আইপিএল ম্যাচের জন্য বিসিসিআই ন্যূনতম ভিত্তি মূল্য নির্ধারণ করেছে ১ কোটি ২০ লাখ ডলার। তখন শুধু এনএফএলের পেছনে থাকব আমরা। বৈশ্বিক পরিমণ্ডলে এটা হবে ক্রিকেটের জন্য বড় এক লাফ।’

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের অনলাইন স্ট্রিমিং নিয়ে আগ্রহ প্রকাশ করেছে বেশ কিছু প্রতিষ্ঠান। এর মধ্যে রিলায়েন্সের ভুত সিলেক্ট, ডিজনির হটস্টার, জিও আর সনি লিভ আছে এই লড়াইয়ে। ২০২৪ সাল নাগাদ ভারতের ইন্টারনেট ব্যবহারকারী বেড়ে দাঁড়াবে ৯০ কোটি। আইপিএল কর্তৃপক্ষ মূলত সেই বাজারটাই তুলে ধরে বাড়তি লাভের আশায় আছে।

Check Also

দুর্দান্ত খেলেও শেষ মুহুর্তে দুই গোল খেয়ে বিশ্বকাপ শুরু করলো মানের সেনেগাল

বিশ্বকাপে আগে কখনোই গ্রুপপর্বে আফ্রিকার কোন দলের কাছে হারেনি নেদারল্যান্ডস। অন্য দিকে সেনেগালও বিশ্বকাপে দু …

Leave a Reply

Your email address will not be published.