Home / খেলার খবর / রোহিত-কোহলিদের পেছনে ফেলে শচিনের পাশে রুতুরাজ

রোহিত-কোহলিদের পেছনে ফেলে শচিনের পাশে রুতুরাজ

আইপিএলে মহেন্দ্র সিং ধোনির কাঁধে অধিনায়কত্ব ফিরিয়ে দিতেই জয়ের দেখা পেয়েছে চেন্নাই সুপার কিংস। শনিবার সানরাইজার্স হায়দরাবাদের বিপক্ষে ম্যাচে ১৩ রানের ব্যবধানে জিতেছে তারা। তাদের জয়ের নায়ক তরুণ ডানহাতি ওপেনার রুতুরাজ গাইকদ।

কিউই ওপেনার ডেভন কনওয়ের সঙ্গে মিলে ১৮৫ রানের উদ্বোধনী জুটি গড়েছেন রুতুরাজ। যা চেন্নাইকে এনে দেয় ২০২ রানের বড় সংগ্রহের ভিত। মাত্র ১ রানের জন্য সেঞ্চুরিবঞ্চিত হন রুতুরাজ, সাজঘরে ফিরে যান ৫৭ বলে ৬টি করে চার-ছয়ের মারে ৯৯ রান করে।

সেঞ্চুরি না পেলেও রেকর্ডবুকে ঠিকই ঝড় তুলেছেন আইপিএলের গত আসরে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক ও সেরা উদীয়মান ক্রিকেটারের পুরস্কার পাওয়া এ ওপেনার। ভারতীয় ব্যাটারদের মধ্যে দ্রুততম হিসেবে গড়েছেন আইপিএলে ১ হাজার রানের রেকর্ড।

অবশ্য এককভাবে এটি করতে পারেননি তিনি। আইপিএলে ১ হাজার রান করতে রুতুরাজের লেগেছে ৩১ ইনিংস। তার আগে আইপিএলে সমান ৩১ ইনিংসেই হাজার রান করেছিলেন কিংবদন্তি ব্যাটার শচিন টেন্ডুলকার। সময়ের অন্যতম সেরা বিরাট কোহলি, রোহিত শর্মারাও পারেননি এতো দ্রুত হাজার রান করতে।

শচিন-রুতুরাজের পর ভারতীয়দের মধ্যে আইপিএলে দ্রুততম হাজার রানের রেকর্ডে থাকা ব্যাটাররা হলেন সুরেশ রায়না (৩৪ ইনিংস), দেবদূত পাডিক্কাল (৩৫ ইনিংস) ও রিশাভ পান্ত (৩৫ ইনিংস)। তবে সবমিলিয়ে এ রেকর্ডের ধারে কাছেও নেই কোনো ভারতীয় ব্যাটার।

আইপিএলে সবচেয়ে কম ইনিংসে হাজার রানের রেকর্ডটি অস্ট্রেলিয়ার শন মার্শের দখলে। তার লেগেছিল মাত্র ২১ ইনিংস। এছাড়া লেন্ডল সিমন্স ২৩ ইনিংস, ম্যাথু হেইডেন ২৫ ইনিংস, জনি বেয়ারস্টো ২৬ ইনিংস ও ক্রিস গেইল ২৭ ইনিংসে করেছেন হাজার রান।

উল্লেখ্য, আইপিএলের ইতিহাসে মাত্র পঞ্চম ব্যাটার হিসেবে কোনো ম্যাচে ৯৯ রানে আউট হয়েছেন রুতুরাজ। তার আগে মাত্র ১ রানের জন্য সেঞ্চুরি হাতছাড়া করা ব্যাটাররা হলেন বিরাট কোহলি, পৃথ্বি শ, ইশান কিশান ও ক্রিস গেইল।

Check Also

দ্বিতীয় ইনিংসের শুরুটাও তেমন ভালো হয়নি বাংলাদেশ দলের

অ্যান্টিগা টেস্টে প্রথম ইনিংসের মতো দ্বিতীয় ইনিংসের শুরুটাও তেমন ভালো হয়নি বাংলাদেশ দলের। তবে প্রথম …

Leave a Reply

Your email address will not be published.