Home / খেলার খবর / ডেভিড ওয়ার্নার এবং পৃথ্বী শ-র ব্যাটিং ঝড়ে ১০.৩ ওভারে ৯ উইকেটে ম্যাচ জিতে নিল দিল্লি ক্যাপিটালস

ডেভিড ওয়ার্নার এবং পৃথ্বী শ-র ব্যাটিং ঝড়ে ১০.৩ ওভারে ৯ উইকেটে ম্যাচ জিতে নিল দিল্লি ক্যাপিটালস

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে নিজেদের তৃতীয় জয় তুলে নিল দিল্লি ক্যাপিটালস। মুম্বাইয়ের ব্রাবোর্ন স্টেডিয়ামে আজ পাঞ্জাব কিংসকে একপ্রকার উড়িয়ে দিয়েছে তারা। এই দিন টসে হেরে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ২০ ওভারে সবকয়টি উইকেট হারিয়ে ১১৬ রান সংগ্রহ করেছে পাঞ্জাব কিংস। জবাবে ডেভিড ওয়ার্নার এবং পৃথ্বী শ-র বিধ্বংসী ব্যাটিংয়ে ৯ উইকেটে ৯.৩ ওভার হাতে রেখেই সহজ জয় তুলে নিয়েছে দিল্লি ক্যাপিটালস।
figure class=”wp-block-image size-full”>

১১৭ রানের টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে শুরু থেকেই মারমুখী ভঙ্গিতে খেলতে থাকেন ডেভিড ওয়ার্নার এবং পৃথ্বী শ। ৬.২ ওভাবেই এই দুইজন দলের খাতায় যোগ করেন ৮৩ রান। ২০ বলে ৪১ রান করে আউট হন পৃথ্বী শ।
figure class=”wp-block-image size-full”>

তবে অন্য প্রান্ত থেকে মাত্র ২৫ বলে হাফ সেঞ্চুরি তুলে নেন ডেভিড ওয়ার্নার। শেষ পর্যন্ত ডেভিড ওয়ার্নার ৬০ এবং সরফরাজ খান ১১ রান করে অপরাজিত থাকেন।
figure class=”wp-block-image size-full”>

মুম্বাইয়ের ব্রাবোর্ন স্টেডিয়ামে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে মায়াঙ্ক আগারয়েলের ব্যাটে ঝড়ো সূচনা করেছিলেন পাঞ্জাব। ইনিংসের পঞ্চম ওভারে বল হাতে নিয়েই এই আগারওয়েলকে বোল্ড করেন মোস্তাফিজ।
figure class=”wp-block-image size-full”>

১৫ বলে ২৪ রান করা পাঞ্জাব অধিনায়ক মোস্তাফিজের বলটি ব্যাট দিয়ে আটকাতে গিয়ে নিজেই ঢুকিয়ে দেন স্ট্যাম্পে। এরপর জিতেশ শর্মা (২৩ বলে ৩২) ছাড়া পাঞ্জাবের আর কোনো ব্যাটার দাঁড়াতে পারেননি।
figure class=”wp-block-image size-full”>

শিখর ধাওয়ানকে (৯) ফিরিয়ে ৩৩ রানের উদ্বোধনী জুটি ভাঙেন ললিত জাদব। অপর ওপেনার তথা দিল্লির অধিনায়ক মায়াঙ্ক আগরওয়াল (১৫ বলে ২৪) ক্রমেই সেট হয়ে গিয়েছিলেন। তাকে সরাসরি বোল্ড করে দেন মুস্তাফিজুর রহমান। ২৩ বলে সর্বোচ্চ ৩২ রান করেন মিডল অর্ডারে নামা জিতেশ শর্মা।
figure class=”wp-block-image size-full”>

শেষদিকে রাহুল চাহার ১২ বলে ১২ আর আশাদীপ সিং ৯ রান না করলে পাঞ্জাবের ইনিংস ১০০ ছাড়াত কিনা সন্দেহ। দলের ৭ ব্যাটার দুই অংক ছুঁতে পারেননি। বল হাতে দিল্লির প্রায় সবাই ভালো করেছেন। ২টি করে উইকেট নিয়েছেন খলিল আহমেদ, ললিত যাদব, অক্ষর প্যাটেল এবং কুলদীপ যাদব। তবে ২ ওভারে ২০ রান দিয়ে উইকেটশূন্য শার্দুল ঠাকুর।
figure class=”wp-block-image size-full”>

মোস্তাফিজ তার প্রথম ওভারে ১ উইকেট নিয়ে ১১, ইনিংসের নবম ওভারে এসে ৬, ১৭তম ওভারে ৭ আর ২০তম ওভারে দেন ৪ রান। সবমিলিয়ে ৪ ওভারে ২৮ রান দিয়ে একটি উইকেট শিকার করেন বাঁহাতি এই পেসার।

Check Also

দুর্দান্ত খেলেও শেষ মুহুর্তে দুই গোল খেয়ে বিশ্বকাপ শুরু করলো মানের সেনেগাল

বিশ্বকাপে আগে কখনোই গ্রুপপর্বে আফ্রিকার কোন দলের কাছে হারেনি নেদারল্যান্ডস। অন্য দিকে সেনেগালও বিশ্বকাপে দু …

Leave a Reply

Your email address will not be published.